শিরোনাম:
নড়াইলের লোহাগড়ায় লিপন হত্যাচেষ্টা মামলার আসামী গ্রেফতার
নড়াইলে মেয়েদের আপত্তিকর ছবি ফেসবুকে ছড়িয়ে দেওয়ার অপরাধে এক যুবক গ্রেফতার
নড়াইলে পুলিশের অভিযানে কারাদণ্ডপ্রাপ্ত ২ জন আসামি গ্রেফতার
নড়াইলে ডিবি পুলিশের অভিযানে মাদকদ্রব্য উদ্ধার, গ্রেপ্তার ২
নড়াইলে মানব পাচার ও ভিকটিম চিহ্নিতকরণ সেবা প্রদান বিষয়ক দক্ষতা উন্নয়নমূলক কর্মশালা অনুষ্ঠিত
নড়াইলে জাতীয় স্থানীয় সরকার দিবস পালন
নড়াইলে মাদরাসা ও কারিগরি শিক্ষক সমিতির গ্রীষ্মকালীন ক্রীড়া প্রতিযোগিতার সমাপনী অনুষ্ঠিত
নড়াইলের কালিয়ায় যুবলীগ কর্মী হত্যা মামলায় আসামীদের দ্রুত গ্রেফতারের দাবীতে মানববন্ধন
নড়াইলে বেপরোয়া পিকআপ কেড়ে নিলো এক বৃদ্ধার জীবন

ভণ্ড কবিরাজ শেফালীর ফাঁদে সর্বস্বান্ত অর্ধশত মানুষ

এমদাদুল হক ,কুষ্টিয়া জেলা প্রতিনিধি:-

গোপন রোগের চিকিৎসা, দাম্পত্য সংকট, বিয়ে না হওয়া, প্রেমে ব্যর্থতা- এমন বহু সমস্যা সমাধান করেন ভন্ড কবিরাজ শেফালী খাতুন।আগ্রহী কেউ ফাঁদে পা দিলে ভুয়া তাবিজ-কবচ দিয়ে হাতিয়ে নেওয়া হতো মোটা অঙ্কের টাকা ও স্বর্ণালংকার। এভাবে প্রতারণার মাধ্যমে অর্ধশতাধিক মানুষকে সর্বস্বান্ত করেছে ভুয়া কবিরাজ শেফালী খাতুন।
শেখালী খাতুন কুষ্টিয়া সদর উপজেলার ১নং হাটশ হরিপুর ইউনিয়নের পুরাতন কুষ্টিয়ার মৃত নুরুল ইসলামের মেয়ে।ভন্ড কবিরাজ শেখালী নামে যুবকদের চিকিৎসার নামে আত্নহত্যা প্ররোচনার অভিযোগ রয়েছে।এর আগে মানিক নামের এক যুবক চিরকুটে ভন্ড করিবাজ শেফালীর নামে চিরকুট লিখে আত্নহত্যা করে।মানিক তার চিরকুটে ভন্ড কবিরাজ শেফালীর বিষয়ে লিখেছিল “যদি পারো তোমরা শেফালীর মত মুখুশধারি শয়তানটাকে এলাকা থেকে তারিয়ে দাও, তা না হলে আমার মত হাজার নির-অপরাধ
মানিকের প্রান চলে যাবে”।এমন হাজারো অভিযোগ রয়েছে ভন্ড কবিরাজ শেফালীর নামে।শেফালী কুমন্ত্র করে অনেক পরিবারের স্বাভাবিক জীবন নস্ট করেছে।তিনি এসব ভন্ডামি করে লাখ লাখ টাকা হাতিয়ে নিয়েছে বলে অভিযোগ রয়েছে।গত ১৪/০৯/২৩ (বৃহষ্পতিবার) রাকিবুল হাসান বাদী হয়ে কুষ্টিয়া মডেল থানায় ভন্ড কবিরাজ শেফালীর
নামে লিখিত অভিযোগ দেন।

অভিযোগ সূএে জানা যায়,শেফালী অনেকদিন যাবৎ এলাকায় কবিরাজী করে বিভিন্ন লোকের ক্ষতি সাধন করছে। সে বিভিন্ন লোকে কু-মন্ত্র দিয়ে ভুল বুঝিয়ে ক্ষতি করে আসছে। যুবকদের প্রেমের তাবিজ দেয় এবং কু-মন্ত্রের মাধ্যমে এলাকায় বিভ্রান্ত সৃষ্টি করছে। গত ১৮/০৫/২০২৩ ইং তারিখে মানিক নামের একটি ছেলেকে টাকা হারানোর মিথ্যা অপবাদ দেওয়ায় সে আত্মহত্যা করে। মানিক মৃত্যুকালে চিরকুট লিখে যায় যে, আমাকে মিথ্যা অপবাধ দেওয়া হয়েছে, এ জন্য শেফালী দায়ী।রাকিবুল হাসান এর ভাতিজা তানজিল (২৪),পিতা-রফিকুল ইসলাম, সাং-পুরাতন কুষ্টিয়া, থানা ও জেলা-কুষ্টিয়ার তার স্ত্রীর সাথে মনোমালিন্য হওয়ায় শেফালীর নিকট বিষয়টি জানায় এবং শেফালী তাকে তাবিজ ও বিভিন্ন লিখিত কাগজ দিয়ে বলে বিছানার বালিশের নিচে রাখতে। সে শেফালীর কথামত তাবিজ লিখিত কাগজ বালিশের নিচে রাখায় গত ৩ দিন ধরে অসুস্থ এবং মানসিক ভারসাম্য হারিয়ে আত্মহত্যার চেষ্টা করছে। গত ১৩/০৯/২০২৩ ইং তারিখ সময় অনুমান রাত ১০.৩০ ঘটিকায় রাকিবুল এর ভাতিজা তানজিল কিছুটা সুস্থ্য হলে তাকে অসুস্থতার বিষয়টি জানতে চাইলে সে তানজিল বলে আমি শেফালীর দেওয়া তাবিজ ও লিখিত কাগজ বালিশের নিচে রাখার পর থেকে অসুস্থ্য হয়ে পড়েছি। শেফালি এভাবে অনেকের ক্ষতি করেছে এবং ভবিষ্যতে করবে। বর্তমানে রাকিবুল হাসান এর ভাতিজা (তানজিল) এর জীবন সংকটাপন্ন হয়ে পড়েছে। যেকোন সময় সে দুর্ঘটনা সহ তাহার প্রাণনাশের আশংকা রয়েছে বলে অভিযোগ করেন।

এলাকাবাসির দাবি, মানিকের মত আর কারোর প্রানহানি হওয়ার আগেই এই ভন্ড, ধান্দাবাজ,অর্থলোভী শেফালীকে দ্রত আইনের আওতায় আনা হোক।তা না হলে যে কোন সময় ঘটে যেতে পারে আবারও বড় রকম দূর্ঘটনা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

উপরে যান